দক্ষিণ 24 পরগনাশিরোনাম এই মুহূর্তে

আমতলা হাসপাতাল রোগী মৃত্যু ঘিরে উত্তেজনা, জরুরি বিভাগে ভাঙচুর রোগী পরিজনদের –

সংবাদ ভাস্কর নিউজ ডেস্ক : আমতলা হাসপাতালে রোগী মৃত্যু ঘিরে ছড়াল উত্তেজনা। চিকিৎসা সামগ্রী সহ হাসপাতালের বিভিন্ন জায়গায় ভাঙচুর করার অভিযোগ রোগী পরিজনদের বিরুদ্ধে। শুক্রবার মাঝরাতে ঘটনাটি ঘটেছে দক্ষিণ ২৪ পরগনার বিষ্ণুপুর থানা এলাকার আমতলায়। থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের হাসপাতাল কতৃপক্ষের। সিসিটিভি ফুটেজ দেখে অজ্ঞাত পরিচয়দের খোঁজে তল্লাশি পুলিশের। রাতে অশান্তি এড়াতে হাসপাতালে মোতায়েন করা হয়েছে পুলিশ।

হাসপাতাল ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, শুক্রবার প্রায় রাত ১১ টা নাগাদ প্রায় বছর ৯৫ ’র এক মরণাপন্ন বৃদ্ধাকে শ্বাসকষ্টজনিত কারণে আমতলা গ্রামীণ হাসপাতালে নিয়ে আসে তার আত্মীয়-পরিজনরা। তৎক্ষণাৎ রোগীর দুরবস্থা বুঝে কর্তব্যরত সিষ্টাররা দ্রুত অক্সিজেন পরিষেবা চালু করে দেওয়ার পাশাপাশি কর্তব্যরত মহিলা চিকিৎসককে ডেকে পাঠানো হয়। কিন্তু তারপরই চিকিৎসা চলাকালীন মৃত্যু হয় ওই রোগীর।

এরপরই উত্তপ্ত হয়ে ওঠে পরিস্থিতি। কর্তব্যরত মহিলা চিকিৎসককে উদ্দেশ্য করে গালিগালাজের পাশাপাশি হাসপাতালের জরুরি বিভাগের বিভিন্ন জায়গায় বহু গুরুত্বপূর্ণ চিকিৎসা সামগ্রী সহ চিকিৎসকের বসার চেয়ার টেবিল ভাঙচুর করতে থাকে প্রায় ১৫-২০ জন অজ্ঞাত পরিচয় রোগী ও রোগীর পরিজনেরা, এমনটাই অভিযোগ হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের। এ বিষয়ে ফোন করে বিষ্ণুপুর থানায় খবর দেওয়া হলে তড়িঘড়ি আমতলা হাসপাতালে আসে পুলিশ। যদিও ততক্ষনে অভিযুক্ত রোগী পরিজনেরা মৃত রোগীর দেহ নিয়ে অন্যত্র চম্পট দেয় বলে খবর হাসপাতাল সূত্রে। তবে এ ঘটনায় স্থানীয় বিষ্ণুপুর থানায় হাসপাতালে থাকা সিসিটিভি ফুটেজ সহ অজ্ঞাত পরিচয় অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ দায়ের করে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। সিসিটিভি ফুটেজ সহ সব দিক খতিয়ে দেখে তদন্ত শুরু করেছে বিষ্ণুপুর থানার পুলিশ। অপরদিকে রাতে আবারো পরিস্থিতি উত্তপ্ত হওয়ার আশঙ্কায় হাসপাতালে চিকিৎসকদের এবং স্বাস্থ্যকর্মীদের নিরাপত্তার খাতিরে মোতায়েন করা হয় পুলিশ।

তবে, করনা আবহের মধ্যেও নিজের জীবন বিপন্ন করে রাত-দিন এক করে রোগীদের সেবায় নিয়োজিত চিকিৎসকদের উপর হামলা কেন? উঠছে প্রশ্ন ।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button