-Advertisement-

দীঘা এবং দার্জিলিংয়ের পর্বতমালায় পর্যটকদের হুমকি –

পশ্চিমবঙ্গ সাধারণ খবর

সংবাদ ভাস্কর নিউজ ডেস্ক : সূত্রের খবর সম্প্রতি লকডাউন চলাকালীন আটকে পড়েছেন কলকাতার দেবাশীষ রায় চৌধুরী
আনলক- শুরুর পরে জিটিএ সিদ্ধান্ত নেয়, পাহাড়ের হোটেল খুলে দেওয়া হবে। সেটা জানতে পেরে পরিবারের কয়েকজন কে নিয়ে দেবাশিসবাবু বৃহস্পতিবার দিন গাড়ি করে দার্জিলিং পৌঁছে যান ।
কিন্তু দার্জিলিঙে তাঁদের হোটেল বয়ে এসে বারবার হুমকি দেওয়া হয় বলে অভিযোগ। দেবাশিস বাবু জানান পাহাড়ের মতো সমুদ্রেও একই ধরনের ঘটনা ।
দার্জিলিং সফর সম্পর্কে দেবাশিসবাবু শুক্রবার জানান, পাহাড়ে ওঠার মুখে রোহিণীতে সমস্ত ধরনের চেকিং, স্ক্রিনিং, ছবি তোলা হয়। কোনও সমস্যা হবে না বলেও জানানো হয়। বিকেল টে নাগাদ হোটেলের সামনে গাড়ি পার্ক করার সময় এক দল ছেলে নানা কথা জিজ্ঞাসা শুরু করে।
পরে রাতে আরেক দল হোটেলে এসে চেঁচামেচি করে। দেবাশিসবাবু বলেন, ‘‘সকাল হওয়া মাত্র আরেক দল এসে হাজির। তাঁদের দাবি, এখনই হোটেল ছাড়তে হবে।
পাঁচ মাসের শিশুটিকে তৈরি করার কথা বলেও রেহাই মেলেনি। আর দেরি করিনি। গাড়ি নিয়ে নেমে চলে আসি মূর্তিতে।’’
পাহাড়ের মতো সমুদ্রেও একই ধরনের ঘটনা। স্থানীয়দের বাধায় হোটেলে থাকতে না পেরে দিঘা থেকে একদিন আগেই, শুক্রবার ফিরতে হল বেহালা সরশুনার কয়েক জনকে ।
পর্যটন মন্ত্রী গৌতম দেব বলেনবিষয়টি শুনেছি এটা দুর্ভাগ্যজনক“।
দীঘা এবং দার্জিলিং এর হোটেল মালিকদের বক্তব্য -“এরকম হলে তাহলে ব্যবসা চলবে কি করে ??” ।
মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় পর্যটনকেন্দ্র আবার চালু করতে অনুমতি দিয়েছেন কিন্তু করোনা ভাইরাসের কারণে ওইসব এলাকার মানুষরা করোনার ভয় পর্যটকদের তাড়িয়ে দিচ্ছে ।

-Advertisement-
Share this page:

Leave a Reply

Your email address will not be published.

-Advertisement-