-Advertisement-

যুবকের ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার হলো বিধায়কের বাড়ি থেকে , দানা বাঁধছে রহস্য –

পশ্চিমবঙ্গ শিরোনাম এই মুহূর্তে

সংবাদ ভাস্কর নিউজ ডেস্ক : বৃহস্পতিবার সকালে দক্ষিণ ২৪ পরগনার গোসাবার বিধায়ক জয়ন্ত নস্করের চুনাখালির বাড়িতে নিজেরই পরিবারের এক সদস্যের গলায় ফাঁস লাগানো দেহ উদ্ধার হয় । স্থানীয় পুলিশ সূত্রে খবর : লাবণ্যের বাড়ি গোসাবার পাঠানখালি এলাকায়। বাম আমলে লাবণ্যের বাবা এবং মা কে পিটিয়ে খুন করা হয় বলে অভিযোগ । তখন লাবণ্যের বয়স ছিল ১৫ বছর । সেই থেকেই তৃণমূলর বিধায়ক জয়ন্ত নস্করের বাড়িতেই থাকতে শুরু করে লাবণ্য ।
পড়াশুনার জন্য সে সোনারপুরে থাকত । কিন্তু লকডাউন পরিস্থিতি তৈরি হওয়ার কারণে সোনারপুর থেকে লাবণ্য ফিরে যায় চুনাখালিতে বিধায়ক জয়ন্ত নস্করের বাড়িতেই ।
বিধায়কের বাড়িতে আলাদা ঘরে থাকতো সে । বাড়ির পরিচারক তার ঘরে খাওয়ার দিতে গিয়ে গলায় ফাঁস লাগানো তার ঝুলন্ত দেহ দেখতে পায় । খবর পেয়ে ছুটে যান বিধায়ক। নিরাপত্তারক্ষীরা তাকে উদ্ধার করে বাসন্তী হাসপাতালে নিয়ে গেলে চিকিৎসকরা মৃত বলে ঘোষণা করেন ।
বিধায়ক এর বক্তব্য : “অনেক ছোট থেকেই ও আমার বাড়িতে থাকতোআমি ওকে পোষ্যপুত্র করে বড় করছিলামহঠাৎ করে কেন এইরকম ঘটনা ঘটল তাও বুঝতে পারছি না।”
লাবণ্যর ঘর থেকে সুইসাইড নোট উদ্ধার হয়েছে , প্রেমঘটিত কারণে সুইসাইড কিনা খতিয়ে দেখছে পুলিশ । মৃতদেহটি পাঠানো হয়েছে ময়নাতদন্তের জন্য ।

-Advertisement-
Share this page:

Leave a Reply

Your email address will not be published.

-Advertisement-