-Advertisement-

২০ এবং ২১ তম ন্যাশনাল মেগা কনভেনশন,অল ইন্ডিয়া পয়েটেস কনফারেন্স মেঘালয়ার তুরাতে

এক নজরে

সংবাদ ভাস্কর ডিজিটাল ডেস্ক : কিছুদিন আগেই কবি মিলি দাস ভারতবর্ষের উপরাষ্ট্রপতি এম ভেনকাইয়াহ নাইডু দ্বারা সম্মানিত হয়েছেন দিল্লী পার্লামেন্ট হাউস এর বালযোগী অডিটোরিয়াম হল থেকে।

-Advertisement-


তিনি এবার ২০ এবং ২১ তম “অল ইন্ডিয়া পয়েটেস কনফারেন্স” থেকে আমন্ত্রিত হয়ে পশ্চিমবঙ্গের হয়ে প্রতিনিধিত্ব করছেন।
অনুষ্ঠানটি হচ্ছে মেঘালয়ার তুরা তে প্যাস্তরাল সেন্টার এ ।


অল ইন্ডিয়া পয়েটেস কনফারেন্স এর অনুষ্ঠানে
ভারতবর্ষের বিভিন্ন রাজ্য থেকে প্রায় তিনশো কবি অংশগ্রহণ করেছেন,যেমন উত্তরপ্রদেশ,কর্ণাটক,মহারাষ্ট্র,
পাঞ্জাব,গুজরাট,
মধ্যপ্রদেশ,চণ্ডীগড়,তামিলনাড়ু আসাম ,মেঘালয়,শিলং,
এছাড়াও বিভিন্ন দেশ থেকে ভারতীয় কবিরা এই ফেস্টিভ্যাল এ অংশগ্রহণ করে থাকেন,
যেমন মরিশাস, লন্ডন,আমেরিকা,সিঙ্গাপুর,
থাইল্যান্ড,চাইনা,হংকং,টার্কি,
ইজিপ্ট,উজবেকিস্তান,সাউথ আফ্রিকা,নেপাল,শ্রীলঙ্কা,
মালএশিয়া,ইতালি,জার্মানি, সুইটজারল্যান্ড,অস্ট্রিয়া,
বেলজিয়াম, হল্যান্ড,ভ্যাটিকান সিটি ইত্যাদি।

-Advertisement-

কবি মিলি দাস বাংলা এবং ইংরেজি কবিতার জন্য বহু সম্মান,খ্যাতি এবং পুরস্কার দেশে এবং বিদেশে পেয়েছেন।
তার ইংরেজি কবিতা অনুবাদ হয়েছে প্রায় পনেরো টি ভাষায়।
বাংলায় জনপ্রিয়তার পাশাপাশি নিরন্তর বিদেশেও তিনি সেই জনপ্রিয়তা এবং খ্যাতি অর্জন করেছেন।

-Advertisement-


আজ প্রথম দিনের অনুষ্ঠানে বিভিন্ন ভাষার কবিরা তাঁর ইংরেজি কবিতার উচ্চ প্রশংসা করেন এবং তিনি বাংলার হয়ে প্রতিনিধিত্ব করছেন,সেজন্য কবিতার পাশাপাশি সেই বিখ্যাত গান “আমি বাংলার গান গাই” ,গানটি কণ্ঠে ধারণ করে সাধারণ মানুষের অন্তরে প্রবেশ করেছেন।
গ্রাম থেকে উঠে এসে কবি মিলি দাস আজ বিশ্বের দরবারে পৌঁছে গেছেন শুধুমাত্র কবিতার মাধ্যমে। এ নিদর্শন দেখে আজকের সমাজের অন্ধকারে পড়ে থাকা মহিলারা জেগে উঠুন।মনের জোর এবং কঠোর পরিশ্রম এর জন্য তিনি একাধারে সফল মা এবং সফল কবি।

Share this page:

Leave a Reply

Your email address will not be published.

-Advertisement-