-Advertisement-

প্রাণে বাঁচলেন সালমান

বিনোদন

প্রিয়াঙ্কা আইচ ভৌমিক , সংবাদ ভাস্কর ডিজিটাল ডেস্ক : ক্রমাগত প্রাণনাশের হুমকি দেওয়া হচ্ছে তাঁকে। কিছুদিন আগে প্রাণনাশের হুমকি পাওয়ার পর সরকারের পক্ষ থেকে তাঁর নিরাপত্তাব্যবস্থা জোরদার করা হয়েছে। এবার এক উড়ো চিঠির মাধ্যমে সালমানকে আবারও প্রাণনাশের হুমকি দেওয়া হলো। আগে সালমানকে একা হুমকি দেওয়া হলেও এবার সঙ্গে অভিনেতার বাবা সেলিম খানকেও রেহাই দেওয়া হয়নি।

-Advertisement-

জানা গেছে, অজ্ঞাত এক ব্যক্তির কাছ থেকে সেলিম খান একটি উড়ো চিঠি পেয়েছেন।সকালে হাঁটাহাঁটির মাঝে একটু বিশ্রাম নেওয়ার জন্য বেঞ্চে বসে ছিলেন। তখনই কোনো অজ্ঞাতপরিচয়ের ব্যক্তির কাছ থেকে উড়ো চিঠি পান সেলিম। সেই চিঠিতে তাঁকে এবং তাঁর ছেলে সালমানকে মেরে ফেলার হুমকি দেওয়া হয়েছে।

চিঠিতে বলা হয়েছে, পাঞ্জাবি গায়ক সিধু মুসে ওয়ালার মতো হাল হবে তাঁদেরও। হুমকির চিঠি পাওয়ার পরপরই সেলিম খান বান্দ্রা পুলিশ স্টেশনে অজ্ঞাতপরিচয় ব্যক্তির বিরুদ্ধে এফআইআর করেছেন। এরপর ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে মুম্বাই পুলিশ। সালমান খানের বাড়ি এবং তাঁর আশপাশের এলাকার সিসি ক্যামেরার ফুটেজ সংগ্রহ করেছে তদন্তকারীরা।

-Advertisement-

কে বা কারা ওই চিঠি রেখে গিয়েছে, তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে; যদিও এখনো কাউকে চিহ্নিত করতে পারেনি পুলিশ।কিছুদিন আগে পাঞ্জাবি গায়ক সিধু মুসে ওয়ালাকে প্রকাশ্যে রাস্তায় গুলি করে হত্যা করা হয়েছে। গ্যাংস্টার লরেন্স বিষ্ণোই এ হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত বলে প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে বিভিন্ন ভারতীয় সংবাদমাধ্যম। কৃষ্ণসার হরিণ শিকারের ঘটনায় সলমন খানকে হত্যার হুমকি দিয়েছিলেন লরেন্স বিষ্ণোই। বিষ্ণোই সমাজে কালো হরিণকে পবিত্র মনে করা হয়। লরেন্স বিষ্ণোই দিল্লির তিহার জেলে বন্দি এবং সেখান থেকে কাজ করেন।

-Advertisement-

হোয়াটসঅ্যাপের মাধ্যমে, এই গ্রুপটি সুপারি নেওয়া এবং মৃত্যু কার্যকর করার কাজ করে। তারপর ফেসবুকে নিজের অপরাধ স্বীকার করে।লরেন্স বিষ্ণোই জিজ্ঞাসাবাদে জানিয়েছিলেন যে সম্পতের কাছে একটি পিস্তল ছিল। এতে সে খুব বেশি দূর পর্যন্ত নিশানা করতে পারত না। দীর্ঘ দূরত্বের কারণে সলমান খানের কাছে পৌঁছাতে পারেননি সম্পত। এর পরে সম্পত তার গ্রামের দীনেশ ফৌজির মাধ্যমে একটি আরকে স্প্রিং রাইফেল পান।

বিষ্ণোই এই রাইফেলটি তার পরিচিত অনিল পান্ড্যের কাছ থেকে ৩-৪ লাখ টাকায় কিনেছিলেন। কিন্তু রাইফেলটি তখন ছিল দীনেশের কাছে, এরপরেই পুলিশের হাতে ধরা পড়েন তিনি। পরেগ্রেফতার করা হয় সম্পত নেহরাকেও।

Share this page:

Leave a Reply

Your email address will not be published.

-Advertisement-